শিরােনাম : সাফ কবলা দলিল বিক্রিত জমি ২৬(ছাব্বিশ) শতাংশ বিক্রিত জমির মূল্য ১৫০.০০০/= (এক লক্ষ পঞ্চাশ হাজার) টাকা। পক্ষ পরিচয়। ১ম পক্ষ : জনাব মানিক মিয়া পিতা : মৃত ছানােয়ার সাকিন : নন্দিগ্রাম, উপজেলা : বেলকুচি, জেলা- সিরাজগঞ্জ, জাতীয়তা : বাংলাদেশী, ধর্ম : ইসলাম, পেশা- ব্যবসা- দলিল গ্রহীতা।

২য় পক্ষ : জনাব কিবরিয়া, পিতা: মৃত নজর আহমেদ সাকিন : উকিলপাড়া, উপজেলা বেলকুচি, জেলা- সিরাজগঞ্জ, জাতীয়তা : বাংলাদেশী, ধর্ম : ইসলাম, পেশা : চাকুরী………… দলিল দাতা।

স্বত্বের বর্ণনা : পরম করুণাময় আল্লাহর নাম স্মরণ রেখে অত্র বিক্রয় দলিলের বর্ণনা ও করছি। নিম তফসিল বর্ণিত ২৬ (ছাব্বিশ) শতাংশ জমির সি এস রেকর্ডীয় মালিক মৃত নজর আহমেদের পুত্র এবং এস. এ. ট্রেডিং-এর মালিক কিবরিয়ার নিকট হতে আমি অত্র দলিল দাতা বিগত ১৯-৩-২০১০ ইং তারিখে সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসে রেজিষ্ট্রিকৃত ‘১নং বহির ১০নং নামজারী মূলে আমার নিজ নামে ৪২৬ নং হােল্ডিং ভুক্ত হয়। যার ভূমি উন্নয়ন কর হাল সন। পর্যন্ত আমি পরিশােধ করে নির্বিবাদে ভােগ দখল করছি।

বিক্রয় বর্ণনা : নিম তফসিল বর্ণিত জমি আমি সাফ বিক্রির ঘােষণা করলে আপনি দলিল গ্রহীতা তা ক্রয় করতে ইচ্ছুক হওয়ায় পরস্পর আলােচনাস্তে জমির বর্তমান বাজার যাচাইয়ে সর্বোচ্চ মূল্য মং ১৫০০.০০/- (একলক্ষ পঞ্চাশ হাজার) টাকা সাব্যস্ত করত সাব্যস্তকৃত সাকুল্য টাকা অদ্য হাজিরান মজলিসের মােকাবেলায় নগদ বুঝে পেয়ে ও নিয়ে অত্র সাফ বিক্রয় দলিল সম্পাদন ও কটিয়াদী সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসে দাখিল দিয়ে আমি দলিল দাতা চিরতরে নিঃস্বত্ববান হলাম এবং বিক্রিত জমির দখল অদ্যই আপনার নিকট বুঝিয়া দিলাম।

অদ্য হতে এ দলিল বিক্রিত জমিতে আমার যাবতীয় স্বত্বে স্বত্ববান ও মালিক দখলকার নিয়ত থেকে আমার নামের খারিজে আপনার নামজারী করত আপনার সদৃইচ্ছাভাবে আপনি ও আপনার ওয়ারিশগণ বিক্রয়/হস্তান্তরের অধিকারসহ ভােগ দখল করতে থাকুন। এতে আমার বা আমার উত্তরাধিকারীগণের কারাে কোন প্রকার ওজর আপত্তি বা দাবী চলবে না। 

সম্পত্তি বা জমি সাফ কবলা দলিলের নমুনা

যে কোন দলিলের নমুনা দেখুন । Dolil Form 2024 । দলিল লেখার নমুনা

নিষ্কন্টকতার অঙ্গীকার : অত্র দলিলের তফসিলভুক্ত জমি আমি ইতােপূর্বে কারাে নিকট দান, উইল, রেহান বা বিক্রি মূলে হস্তান্তর করিনি। কোন ব্যাংক বা কোন প্রতিষ্ঠানের নিকট দায়বদ্ধ রাখিনি। অন্য কারাে নিকট হতে বায়না গ্রহণ করিনি। নিম তফসিল বর্ণিত জমি আমি সম্পূর্ণ নির্ধায়ী, নিস্কন্টক অবস্থায় আপনার নিকট বিক্রি করলাম।

অত্র দলিলের খতিয়ান দাগ, চৌহদ্দি বয়ানে বা কোন প্রকার ভুল ভ্রান্তিতে আপনার বৈধ স্বত্ব সংরক্ষণে বা যে কোন প্রয়োেজনে আমি “ভ্রম সংশােধন দলিল সম্পাদনসহ সব রকম সহায়তা করবাে। এ জমির বিষয়ে ভবিষ্যতে কোন তঞ্চকতা প্রকাশ পেলে আমি আইনগত দায়ী থাকবাে। 

তফসিল বর্ণনা : জেলা সিরাজগঞ্জ, উপজেলা ও সাব-রেজিষ্ট্রি অফিস বেলকুচি, মৌজাস্থিত :….. অর্থাৎ দুই দাগে বিক্রিত জমি (১৬ + ১০) = ২৬ (ছাব্বিশ) শতাংশ। বিক্রিত জমির ভূঃ ইঃ কর তহসিলদার উকিলপাড়া বরাবরে প্রদেয়।

চৌহদ্দি বর্ণনা : বিক্রিত জমির উত্তরে আয়মন নেসা, পূর্বে আ: জলিল, দক্ষিণে, বিক্রেত ছাবেদ ও পশ্চিমে তমিজ উদ্দিন। এ চৌহদ্দির মধ্যে বিক্রিত ২৬ (ছাব্বিশ) শতাংশ জমি।

সম্পাদনা : এতদ্বার্থে স্বেচ্ছায়, স্বজ্ঞানে, সুস্থ শরীরে অন্যের বিনা প্ররােচনায় অত্র সা কবলা দলিল লিখিয়ে, পাঠ করে ও এর মর্ম অবগত হয়ে সম্পাদন সহি দিলাম। ইতি তারি বাংলা……… সনের………., আষাঢ়, ইংরেজী…….. সনের……. জুন, সময় সকাল ১১.৩৭ মিনিট। অত্র দলিলে হলফনামাসহ ফর্দ সংখ্যা ৬ (ছয়), দলিল কম্পিউটারের টাইপকৃত । দাতা ১(এক) জন, গ্রহীতা ১ (এক) জন, সাক্ষী ২ (দুই) জন, সনাক্তকারী ১ (এক) জন। | স্বাক্ষর : মুসাবিদা কারক নাম : ………… দাতার নামসহ স্বাক্ষর……………, এস, আর, অফিস : ………… দলিল লেখক সনদ নং : ……………….. সাক্ষীগণের স্বাক্ষর (১) …….. (২) ………… স্পষ্ট অক্ষরে সনাক্তকারীর নাম………., পিতার নাম …………… সাকিন

3 thoughts on “একটি আধুনিক দলিলের নমুনা ২০২৪ । দলিলে যে বিষয়গুলো উল্লেখ থাকতে হবে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *