Sim registration check 2022 । আপনার নামে কতটি সিম রেজিস্ট্রেশন রয়েছে?

অনলাইনে মাঠে ঘাটে সিম রেজিস্ট্রেশন দেয়া যায়। যেহেতু বায়োমেট্রিক রেজিস্ট্রেশন পদ্ধতিতে সিম তুলতে হয়। তাই শুধু এনআইডি নম্বর, জন্ম তারিখ এবং দুই হাতের আঙ্গুলের ছাপ হলেই সিম তোলা যায়। আপনি সিম তুলতে গিয়ে এনআইডি’র কপি দিয়ে এসেছেন। সেটি দিয়ে সিম বিক্রেতা অন্য কাউকে বায়োমেট্রিক রেজিস্ট্রেশন পদ্ধতিতে সিম অন্য কাউকে দিতেই পারে। সুতরাং সিম কেনার পর আপনি এনআইডি কার্ডের কপি দিয়ে আসবেন না।

সিম রেজিস্ট্রেশন কি?

আপনার ব্যবহৃত সিমটি অপারেটরের মাধ্যমে আঙ্গুলের ছাপ দিয়ে সিম নিবন্ধনকরণই হচ্ছে সিম রেজিস্ট্রেশন। ২৬ এপ্রিল ২০১৯ তারিখের মধ্যে সংশ্লিষ্ট মোবাইল অপারেটরের কাস্টমার কেয়ার সেন্টারে নিজে হাজির হয়ে যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণ করে অতিরিক্ত সিম/রিম নিস্ক্রিয় করার জন্য নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

এক NID এনআইডি’র বিপরীতে কতগুলো সিম রেজিস্ট্রেশন করা যায়?

সরকারি সিদ্ধান্ত অনুযায়ী একজন গ্রাহকে প্রি-পেইড, পোস্ট পেইড মোবাইল অপারেটর নির্বিশেষে সিম/রিক এর সংখ্যা নির্ধারণ করা হয়েছে। সিম/রিম এর সর্বমোট সংখ্যা ১৫ নির্ধারণ করা হয়েছে। ২০১৯ সাল হতে ১৫ সীমার বাইরে কোন গ্রাহক (কর্পোরেট গ্রাহক ব্যতীত) সিম/রিম নিবন্ধন করতে পারবেন না। তাই আপনি সিম নিবন্ধনের ক্ষেত্রে সতর্ক থাকুন ১৫টি’র বেশি সিম আপনি রেজিস্ট্রেশন করে থাকলে পূর্ব বা আগে করা সিম বাদ পড়ে যাবে। অথবা আপনি সিম রেজিস্ট্রেশন করতে গেলে সিম রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হবে না। অন্যের এনআইডি দিয়ে আপনার ফিঙ্গারের মাধ্যমে কোন ভাবে নিজের সিম রেজিস্ট্রেশন করে আইনত অপরাধ করবেন না। অন্যের জাতীয় পরিচয়পত্র ব্যবহার করে আপনি যদি নিজের সিম রেজিস্ট্রেশন করেন তবে জেল এবং আর্থিক জরিমানা অথবা জেল/জরিমানা হতে পারে।

সিম নিবন্ধন সম্পর্কিত সরকারি পরিপত্র

সিম নিবন্ধন নীতিমালা ২০২২

সিম /রিমের সর্বোচ্চ সংখ্যা নির্ধারণ ২০২২

জন্ম নিবন্ধন দিয়ে কি সিম রেজিস্ট্রেশন করা যাবে?

জি। জন্ম নিবন্ধন /পাসপোর্ট/ ড্রাইভিং লাইসেন্স দিয়েও সিম রেজিস্ট্রেশন করা যাবে। তবে এটির মেয়াদ ৬ মাসের বেশি হবে না। আপনি যদি একজন প্রবাসী হউন এবং কিছু দিনের জন্য দেশে এসেছেন তাহলে আপনি সিম ক্রয় করতে পারবেন। তবে ৬ মাসের জন্য একটিভ থাকবে কিন্তু ৬ মাসের মধ্যে যদি আপনি এনআইডি পেয়ে যান তবে আপনি তা অবশ্যই সংশ্লিষ্ট অপারেটরের সাথে যোগাযোগ করে রি-রেজিস্ট্রেশন করে নিবেন।

কেন আপনি কত গুলো সিম কিনেছেন তা চেক করতে যাবেন?

যদি আপনার এনআইডি দিয়ে অন্য কেউ সিম ক্রয় করে থাকে এবং তা দিয়ে ক্রাইম করে তবে কিন্তু আপনি বিপদে পড়বেন। তাই আপনি কিছুদিন পর পর আপনার ক্রয়কৃত সিম সংখ্যা চেক করুন এবং সিম নম্বরগুলো নিশ্চিত করুন যে, সেগুলো আপনারা ব্যবহার করছেন।

আপনার প্রয়োজনীয় সিম/রিম বন্ধ হওয়ার পূর্বেই আপনার সিম /রিম সংখ্যা নির্ধারিত সীমার মধ্যে রাখুন।

যেভাবে সিম সংখ্যা চেক এবং নাম্বার চেক করবেন । সি রেজিসে

আপনার নামে নিবন্ধিত সিম/ রিম সংখ্যা এবং নাম্বার জানতে ডায়াল করুন *১৬০০১# (বিনামূল্যে)

নিচের কোড গুলো ডায়াল করে চেক করুন রেজিস্ট্রেশন স্ট্যাটাস

Operators Reg. Check Code Status Check Code
Robi *1600*3# *1600*1#
AirTel *121*4444#
Banglalink *1600*2# *1600*1#
Grameen Phone type “info” send to 4949
Teletalk type “info” send to 1600

 

বিভিন্ন ইউজার হলে নিচের স্টেপগুলো ফলো করে কাজ সেড়ে নিতে পাবেন। (Robi, Airtel, Banglalink, Grameen Phone, and Teletalk)

  • Dial *16001# (any mobile operators)
  • Now enter the last 4 digits of your NID/National ID
  • In the reply message, you’ll receive the numbers of registered SIM under the NID

 

সূত্র: বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *