উইল ও অছিয়তনামা কি এবং উইল বিলুপ্তি হয় কখন?

উইল মৌখিক এবং লিখিত দুভাবেই করা চলে। এমনকি অসামর্থ্যের কারণে ইঙ্গিতেও উইল করা যায়। তবে মৌখিক উইলের ক্ষেত্রে ২ জন পুরুষ বা ১ জন পুরুষ ও ২ জন মহিলা সাক্ষীর উপস্থিতিতে হতে হবে। বর্তমান বাস্তবতায় উইল লিখিত হওয়া উচিত।

ওছি কি?

অছিয়তের বর্ণনানুযায়ী সম্পত্তি পরিচালনার জন্য নিযুক্ত ব্যক্তিকে বলে ওছি ।

অছিয়তের ক্ষেত্রে ফাইল প্রবেট কতটা গুরুত্বপূর্ণ?

অছিয়ত সরকারী ভাবে কায়েম করতে হলে আদালত হতে যে স্বীকৃতি নিতে হয় তাকে বলে প্রবেট। এটি না নেয়া হলে অছিয়ত আদালতে গ্রাহ্য নাও হতে পারে। প্রবেট মুসলিম উইলে আবশ্যকীয় নয়।

অছিয়তনামা দলিল রেজিস্ট্রেশন ফিস

১। রেজিস্ট্রেশন ফিঃ ১০০ টাকা (সি ফি)।

২। স্ট্যাম্প শুল্কঃ প্রযোজ্য নয়।

৩। স্থানীয় সরকার করঃ প্রযোজ্য নয়।

৪। উৎসে আয়কর (53H): প্রযোজ্য নয়।

৫। উৎসে আয়কর (53FF): প্রযোজ্য নয়।

৬। মূল্য সংযোজন কর (VAT): প্রযোজ্য নয়।

৭। ই ফিঃ ১০০ টাকা।

৮) এন ফিঃ

(ক) বাংলায় প্রতি ৩০০ শব্দ বিশিষ্ট এক পৃষ্ঠা বা উহার অংশ বিশেষের জন্য ১৬ টাকা।

(খ) ইংরেজি ভাষায় প্রতি ৩০০ শব্দ বিশিষ্ট এক পৃষ্ঠা বা উহার অংশ বিশেষের জন্য ২৪ টাকা।

 ৯) এনএন ফি (নকলনবিশগনের পারিশ্রমিক):

(ক) বাংলায় প্রতি ৩০০ শব্দ বিশিষ্ট এক পৃষ্ঠা বা উহার অংশ বিশেষের জন্য ২৪ টাকা।

(খ) ইংরেজি ভাষায় প্রতি ৩০০ শব্দ বিশিষ্ট এক পৃষ্ঠা বা উহার অংশ বিশেষের জন্য ৩৬ টাকা।

১০) হলফনামাঃ ২০০ টাকার নন-জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে হলফনামা প্রিন্ট করে দলিলের সাথে সংযুক্ত করতে হবে।

১১) কোর্ট ফিঃ প্রযোজ্য নয়।

উইল বাতিল করা যায়?

উইল দাতা মৃত্যুর পূর্বে যে কোন সময় উইল বাতিল করতে পারেন। একবার দানের বস্তুটি উইল করার পর পুনরায় ঐ একই বস্তু অন্য কারাে অনুকূলে উইল করলে পূর্বের উইলটি বাতিল হয়ে যাবে।
একজন হিন্দু তার সকল সম্পত্তি উইল করতে পারেন তবে যাদের ভরণ পােষনের জন্য তিনি আইনত বাধ্য, তাদের জন্য উপযুক্ত ব্যবস্থা রেখে বাকী সম্পত্তি উইল করতে হবে। |

উইল বিলুপ্তি হয় কখন?

  1. উইল দানের পর উইলদাতা বিকৃত মস্তিষ্ক বিশিষ্ট হয়ে গেলে। এমন কি দাতার মৃত্যুর পূর্বে সুস্থমস্তিষ্ক সম্পন্ন হয়ে গেলেও।
  2. উইল গ্রহীতা দাতার আগে মারা গেলে।
  3. দাতা বা গ্রহীতা ইসলাম ধর্ম ত্যাগ করলে ।
  4. উইল গ্রহীতা দাতাকে হত্যা করলে।
  5. উইল কৃত সম্পত্তির উপর অন্য কারাে অধিকার সাব্যস্থ হলে।

কোন ব্যক্তি কর্তৃক তার মৃত্যুর পূর্বে তার সম্পত্তির মালিকানা বা ব্যবস্থাপনা সম্পর্কে তার মৃত্যুর পর কার্যকর হবে – এরূপ সিদ্ধান্তমূলক স্বাক্ষরিত পত্রকে উইল বলে। ইসলাম ধর্ম ব্যতীত অন্যান্য ধর্মানুসারীদের জন্য উইলের বিষয়টি প্রযোজ্য। উইলকারীর মৃত্যুর পর উইল কার্যকর হয়; তবে, উইল কার্যকর করার ক্ষেত্রে বিজ্ঞ আদালত হতে ‘প্রবেট অব উইল আহরণ করা বাঞ্ছনীয়। ১৮৯৭ সালের জেনারেল ক্লজেস অ্যাক্টের ৩(৫৭) ধারায় উইলের সংজ্ঞা প্রদত্ত হয়েছে। উক্ত সংজ্ঞানুযায়ী মরনোত্তর সম্পত্তি বিলিবন্দোবস্তের স্বতঃস্ফূর্ত লিখিত ব্যবস্থাপত্র হলো- উইল।

অছিয়তনামা/বন্টননামা/ক্রয়সূত্রে/হেবাসূত্রে/ওয়ারিশসূত্রে নামজারির আবেদন: ডাউনলোড

সূত্র: ডাউনলোড

One thought on “উইল ও অছিয়তনামা কি এবং উইল বিলুপ্তি হয় কখন?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *