অনলাইনে খাজনা পরিশোধ করার নিয়ম ২০২২ । বিকাশ বা রকেটে ভূমি কর পরিশোধ করুন

জমিটি অবশ্যই আপনার নামে খারিজ বা নামজারি বা মিউটেশন করা থাকতে হবে – খতিয়ান বা পর্চায় কর প্রদানকারীর তথ্য থাকতে হবে – অনলাইনে খাজনা পরিশোধ করার নিয়ম ২০২২

হোল্ডিং নম্বর কি লাগবেই? – ১৬১২২ নম্বরে কল করে ভূমির তথ্য দিলেও আপনি হোল্ডিং নম্বর পেতে পারেন। অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন করে ভূমি তথ্য বা ডকুমেন্ট আপলোড করে অনুমোদন নিয়ে হোল্ডিং নম্বর ছাড়াই ভূমি কর পরিশোধ করতে পারবেন। তথ্য অনুমোদনের ক্ষেত্রেও হোল্ডিং নম্বর জরুরি নয়। আপনার এনআইডি, মোবাইল নম্বর, জন্ম তারিখ এবং জমির পর্চা বা খতিয়ান অথবা ভূমি কর পরিশোধের সর্বশেষ রশিদ আপলোড করে আইডি অনুমোদনের জন্য আবেদন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে হোল্ডিং নম্বরের পাশে (*) চিহ্ন না থাকায় এই তথ্য প্রদান আবশ্যক নয়।

যদি বেশি ঝামেলা মনে হয় তবে আপনি প্রথমবার ইউপি বা ভূমি অফিসে গিয়ে ভূমি কর অনলাইনে পরিশোধ করলে আপনার মোবাইল নম্বর ইউজার আইডি এবং পাসওয়ার্ড করে দিবে এবং আপনি পরবর্তী আপনার মোবাইল নম্বর এবং পাসওয়ার্ড দিয়ে লগিন করে বকেয়া বিল অনলাইনে নিজেই পরিশোধ করতে পারবেন। এজন্য মোবাইল বা কম্পিউটারে https://ldtax.gov.bd/citizen/register লিংকে ঢুকে লগিন করতে হবে এবং পেমেন্ট অপশনে গিয়ে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে পেমেন্ট করতে হবে।

আপনি ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টারে উদ্যোক্তাদের সহযোগিতা নিয়ে নিবন্ধন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে প্রতিটি নিবন্ধন এর জন্য উদ্যোক্তাগন ভূমি অফিস থেকে ১০ টাকা করে পাবেন। এক্ষেত্রে নাগরিকদের কোন খরচ বহন করতে হবে না। আপনি সংশ্লিষ্ট তহশিল অফিসে গিয়ে আপনার মোবাইল, এনআইডি কার্ড নাম্বার ও জন্ম তারিখ, খতিয়ান নিয়ে গিয়েও আপনার অনলাইন কার্যক্রম সম্পন্ন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে নাগরিকদের কোন টাকা খরচ করতে হবে না। গত জুলাই ২০২১ থেকে সকল ভূমি উন্নয়ন কর অনলাইনে নেয়া হচ্ছে।

অনলাইনে কি ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ রশিদ পাওয়া যায়? / হ্যাঁ এবং সেটিতে ভূমি অফিসের স্বাক্ষর ছাড়াই গ্রহণযোগ্য হবে।

ঝাঁমেলামুক্ত পদ্ধতিতে অনলাইনে ভূমি কর পরিশোধ করুন।

অনলাইনে খাজনা পরিশোধ করার নিয়ম ২০২২ । বিকাশ বা রকেটে ভূমি কর পরিশোধ করুন

Caption: ldtax.gov.bd/citizen/register

অনলাইনে খাজনা পরিশোধে রেজিষ্ট্রেশন সম্পন্ন ২০২২ । অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর প্রদানের জন্য যা করতে হবে

  1. ঘরে বসেই ভূমি মালিক www.land.gov.bd অথবা www.ldtax.gov.bd ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে ক) মোবাইল নাম্বার খ) ন্যাশনাল আইডি কার্ড নাম্বার ও গ) জন্মতারিখ লিখলে আপনার মোবাইল এ একটি ৬ ডিজিট এর OTP কোড যাবে।
    মোবাইল এ প্রাপ্ত কোড লিখে পরবর্তী বাটনে ক্লিক করলে আপনার নিবন্ধন সম্পন্ন হবে।
  2. নিবন্ধন সম্পন্ন হলে আপনি আপনার প্রোফাইল এর জন্য একটি পাসওয়ার্ড দিয়ে আপনাকে আপনার আইডিতে লগইন করতে হবে।
  3. আইডিতে প্রবেশ করে আপনি খতিয়ান অপশনে গিয়ে খতিয়ানের তথ্য দিলে আপনার কাজ শেষ। পরবর্তী কাজ তহশিলদার করবেন। আপনার আপলোডকৃত খাজনার রশিদ বা খতিয়ান বা পর্চা ভূমি অফিস যাচাই করে নিশ্চিত হলে অনুমোদন করবেন। অনুমোদন হলেই কেবল মোট দাবী কত টাকা তা দেখাবে। এজন্য কিছুটি অপেক্ষা করতে হবে। অর্থাৎ প্রমানক আপলোড করার পর অনুমোদনের জন্য অপেক্ষা করতে হবে।
  4. আপনি এই আইডি থেকে পরবর্তীতে ঘরে বসেই ভূমি উন্নয়ন কর দিতে পারবেন। ভূমি অফিস বা তহশিল অফিসে যেতে হবে না।
  5. আপনি পুনরায় আইডিতে লগিন করে পেমেন্ট অপশনে অনলাইন পেমেন্ট সিলেক্ট করে বিকাশ, নগদ বা রকেটের মাধ্যমে মোট দাবীকৃত অর্থ পরিশোধ করতে পারবেন।
  6. পেমেন্ট সম্পন্ন হতে দাখিলাতে গিয়ে রশিদ সংগ্রহ করতে পারবেন।

মৃত ব্যাক্তির নামে নিবন্ধন ও ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করা যাবে কি?

 না। নিবন্ধন এবং ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধের জন্য মৃত ব্যাক্তির ওয়ারিশদের নামজারি করে নিতে হবে। টোকেন হচ্ছে একটি হোল্ডিং এর ইউনিক নাম্বার, যা দিয়ে মোবাইল ব্যাংকিং (বিকাশ,নগদ,রকেট ও উপায়) এর পে বিলের মাধ্যমে ভূমি উন্নয়ন কর প্রদান করা যাবে। হোল্ডিং এর বিস্তারিত অপশনে ক্লিক করে “টোকেন জেনারেট” অপশন এর মাধ্যমে টোকেন জেনারেট করে নিতে হবে। মোবাইল ব্যাংকিং (বিকাশ,নগদ,রকেট ও উপায়) এর পে বিল এর মাধ্যমে ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করতে হলে টোকেন জেনারেট করে নিতে হবে।

লেখা পড়ে না বুঝলে ভিডিও দেখে নিতে পারেন: ক্লিক করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *