দলিল ফি ক্যালকুলেটর ২০২২

জমির দর ঠিক করা হলেই তখন চিন্তা আসে কিভাবে জমির দলিল খরচ হিসাব করা যায়। জমির দলিল খরচ হিসাব করতে হলে প্রথমেই যে বিষয়টি আপনাকে মাথায় রাখতে হবে। এটি কি শহর এলাকায় নাকি ইউনিয়ন পর্যায়ে। তাছাড়া সরকারি বিভিন্ন ফি আপনাকে বের করতে হবে। এ সকল ঝামেলা গুলো বুঝা খুবই মুশকিল এটিকে সহজ করতেই আজকের এই পোস্ট।

দলিল খরচ বা ফি?

মূলত জমির দাম এবং এলাকার ধরণ মোতাবেক দলিল খরচ নির্ভর করে। দলিল করতে ঠিক কত ব্যয় হবে সেটিই হচ্ছে দলিল খরচ বা ফি। স্ট্যাম্প শুল্ক, রেজিস্ট্রেশন ফি, এনফি, ভ্যাট, হলফ নামার স্ট্যাম্প ইত্যাদি বাবদ ব্যয় বা খরচই হচ্ছে দলিল খরচ। আপনি খুব সহজেই অনলাইনে কিন্তু সরকারি ক্যালকুলেটর ব্যবহার করে হিসাব কষে নিতে পারেন।

দলিল ফি ক্যালকুলেটর

এটি অটো ক্যালকুলেটর এবং কিছু টার্মস যুক্ত করা আছে যা দিয়ে আপনি খুব সহজেই হিসাব কষে দেখতে পারেন। অনলাইনে দলিলের প্রকৃতি, বিভাগ, জেলা, উপজেলা, অফিসের নাম, জমির মূল্য, বিক্রেতার ধরণ ইত্যাদি ইনপুট দিলে সমস্ত হিসাবে কষে ক্যালকুলেটরটি আপনাকে মোট দলিল ফি দেখাবে। নিচের চিত্রের মত তথ্য ইনপুট দিন। হিসাব কষতে এই লিংক ভিজিট করুন: দলিল ক্যালকুলেটর

দলিল ক্যালকুলেটর ২০২২

কম্পিউটার বা মোবাইলের ব্রাউজার গুগল ক্রোম বা ফায়ারফক্স ব্যবহার করে তথ্য গুলো ইনপুট দিলেই নিচের মত হিসাব দেখাবে।

জমি রেজিস্ট্রি খরচ ২০২২

অর্থ পরিশোধ পদ্ধতি

  ১। রেজিস্ট্রেশন ফিঃ- দলিলের মূল্য ২৪,০০০ টাকা বা তার কম হলে রেজিস্ট্রি অফিসে নগদ অর্থে এবং দলিলের মূল্য ২৪,০০০ টাকার বেশি হলে সোনালী ব্যাংক লিঃ এর স্থানীয় শাখায় (রেজিস্ট্রেশন ফি, এন- ফি ও ই- ফি একত্রে) কোড নং ১.২১৬১.০০০০.১৮২৬ তে জমা করে পে-অর্ডার এর মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।
 ২। এনএন ফি রেজিস্ট্রি অফিসে নগদে পরিশোধ করতে হবে ।
 ৩। দলিলে সর্বোচ্চ ১,২০০ টাকার নন-জুডিসিয়াল স্টাম্প ব্যবহার করা যায়। স্টাম্প খাতের বাকী অর্থ সোনালী ব্যাংক এর স্থানীয় শাখায় কোড নং ১.১১০১.০০২০.১৩১১ তে জমা করে পে-অর্ডারের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।
 ৪। স্থানীয় সরকার কর রেজিস্ট্রি অফিস সংশ্লিষ্ট এনআরবিসি ব্যাংক বুথে জমা করতে হবে। যেখানে রেজিস্ট্রি অফিস সংশ্লিষ্ট এনআরবিসি ব্যাংক নাই সেখানে সোনালী ব্যাংক লিঃ এর স্থানীয় শাখায় দপ্তরের হিসাব নম্বরে জমা করে পে-অর্ডারের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।
 ৫। উৎস কর (53H): উৎস করের অর্থ সোনালী ব্যাংক লিঃ এর স্থানীয় শাখায় ১.১১৪১.০০৬৫.০১১১ নম্বর কোডে জমা করে পে-অর্ডার এর মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।
 ৬। সরকার নির্ধারিত হলফনামা ২০০ টাকার স্টাম্পে প্রিন্ট করে দলিলের সাথে সংযুক্ত করতে হবে।
 ৭। কোর্ট ফিঃ- সম্পত্তি হন্তান্তর (এল,টি) নোটিশে আঠালো স্টাম্প ক্রয় করে লাগাতে হবে।
 ৮। ভ্যাট এর অর্থ সোনালী ব্যাংক লিঃ এর স্থানীয় শাখায় জমা করে ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে। কোড গুলো হলঃ ঢাকা (উত্তর) – ১/১১৩৩/০০১৫/০৩১১, ঢাকা (দক্ষিণ) – ১/১১৩৩/০০১০/০৩১১, ঢাকা (পূর্ব) – ১/১১৩৩/০০৩০/০৩১১, ঢাকা (পশ্চিম) – ১/১১৩৩/০০৩৫/০৩১১, চট্টগ্রাম – ১/১১৩৩/০০২৫/০৩১১, সিলেট – ১/১১৩৩/০০১৮/০৩১১, রাজশাহী – ১/১১৩৩/০০২০/০৩১১, যশোর – ১/১১৩৩/০০০৫/০৩১১, খুলনা – ১/১১৩৩/০০০১/০৩১১, কুমিল্লা – ১/১১৩৩/০০৪০/০৩১১, রংপুর – ১/১১৩৩/০০৪৫/০৩১১
 ৯। উৎস কর (53FF): এই খাতের অর্থ সোনালী ব্যাংক লিঃ এর স্থানীয় শাখায় ১.১১৪১.০০০০.০১০১ নম্বর কোডে জমা করে পে-অর্ডার এর মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে।
 ১০। স্ট্যাম্প আইন, ১৮৯৯ এর ৫ নম্বর ধারায় Instruments relating to several distinct matters প্রসঙ্গে বলা হয়েছে, Any instrument comprising or relating to several distinct matters shall be chargeable with the aggregate amount of the duties with which separate instruments, each comprising or relating to one of such matters, would be chargeable under this Act.

বি:দ্র: পুনঃ রেজিস্ট্রির ক্ষেত্রে যে কোনো আয়তনের ফ্ল্যাটের জন্য ভ্যাট হবে দলিল মূল্যের ২% টাকা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *